-->

Breaking News

ভগবান শ্রীকৃষ্ণের শুভ জন্মাষ্টমী উপলক্ষে কুমিল্লা জেলা আইনজীবী সমিতির উদ্যোগে আলোচনাসভা


নিজস্ব প্রতিবেদক: সোমবার (০২ অক্টোবর) দুপুরবেলা কুমিল্লা জেলা আইনজীবী সমিতি ভবনের দ্বিতীয় তলায় ৭নং হল রুমে জেলা আইনজীবী সমিতির উদ্যোগে হিন্দু সম্প্রদায়ের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় উৎসব পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের ৫২৪৯তম আবির্ভাব তিথি জন্মাষ্টমী উপলক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এডভোকেট মোঃ আহছান উল্লাহ খন্দকার এর সভাপতিত্বে এবং জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট মোঃ আবু তাহের ও ট্রেজারার এডভোকেট নবেন্দু বিকাশ সর্বাধিকারী দোলন এর যৌথ সঞ্চালনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন- কুমিল্লার বিজ্ঞ সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ মোঃ হেলাল উদ্দিন এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিজ্ঞ চান্দিনা সিনিয়র সহকারী জজ ধ্রুব জ্যোতি পাল এবং প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন- নজরুল গবেষক ও কুমিল্লা বিবেকানন্দ শিক্ষা সংস্কৃতি পরিষদের প্রাক্তন সভাপতি অধ্যাপক শ্যামা প্রসাদ ভট্টাচার্য। 

এছাড়াও বক্তব্য রাখেন- জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এডভোকেট মোঃ সৈয়দ আব্দুল্লাহ পিন্টু ও সাবেক সভাপতি এডভোকেট মোহাম্মদ ইসমাইল, বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ কুমিল্লা জেলা শাখার আহবায়ক ও  লাকসাম উপজেলা চেয়ারম্যান এডভোকেট মোঃ ইউনুছ ভূঁইয়া, সাবেক জেলা পিপি ও বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ কুমিল্লা জেলা শাখার সদস্য সচিব এডভোকেট মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান লিটন, বিজ্ঞ জেলা জিপি এডভোকেট তপন বিহারী নাগ, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট মোঃ সৈয়দ নুরুর রহমান, বিশিষ্ট লেখক সিনিয়র এডভোকেট মোঃ গোলাম ফারুক, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট মোঃ মাহবুবুর রহমান, এডভোকেট দীলিপ কুমার চন্দ, নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল-০১ এর স্পেশাল পিপি ও আইনজীবী ঐক্য পরিষদ কুমিল্লা ইউনিট এর সভাপতি এডভোকেট প্রদীপ কুমার দত্ত ও সিনিয়র এডভোকেট চন্দন কুমার দেব প্রমুখ। 

অনুষ্ঠানে পবিত্র গীতা পাঠ করেন আন্তর্জাতিক কৃষ্ণভাবনামৃত সংঘ (ইসকন) কুমিল্লার প্রধান উপদেষ্টা শ্রীপাদ সদাশিব সিংহ দাস ব্রহ্মচারী এবং সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন- জেলা আইনজীবী সমিতির রিক্রিয়েশন সেক্রেটারি এডভোকেট মোঃ কাজী আবদুল কাইয়ুম মিন্টু। এ ছাড়াও বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিজ্ঞ বরুড়া সিনিয়র সহকারী জজ রাজীব কুমার দেব। 

এসময় উপস্থিত ছিলেন- বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ কুমিল্লা জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ তাপস কুমার বকসী, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ কুমিল্লা জেলা শাখার সিনিয়র সহ-সভাপতি ট্রাস্টি নির্মল পাল, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ কুমিল্লা মহানগর শাখার সাধারণ সম্পাদক অচিন্ত্য দাশ টিটু, জাতীয় হিন্দু মহাজোট কুমিল্লা জেলা শাখার উপদেষ্টা মণ্ডলীর সদস্য তাপস কুমার নাহা, বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ কুমিল্লা জেলা শাখার আইসিটি সম্পাদক এডভোকেট তাপস চন্দ্র সরকার, বাংলাদেশ আইনজীবী ঐক্য পরিষদ কুমিল্লা ইউনিট এর সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট সুবীর নন্দী বাবু, সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট কৌশিক চন্দ্র সরকার ও কোষাধ্যক্ষ এডভোকেট সজল চন্দ্র পাল এবং আন্তর্জাতিক কৃষ্ণভাবনামৃত সংঘ (ইসকন), কুমিল্লা জগন্নাথপুর মন্দির পরিচালনা কমিটির সহ-সভাপতি শ্রীপাদ পীতাম্বর দাস ব্রহ্মচারী (পিন্টু প্রভু) ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শ্রীপাদ যুধিষ্ঠি দাস ব্রহ্মচারীসহ কুমিল্লা জেলা আইনজীবী সমিতির প্রায় তিন শতাধিক আইনজীবী। 

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন- কৃষ্ণপক্ষের অষ্টমী তিথিতে যখন রোহিণী নক্ষত্রের প্রাধান্য হয়, তখন জন্মাষ্টমী উদযাপিত হয়। কৃষ্ণের আবির্ভাব হয়েছিল এক ঘোরতর সঙ্কুল পরিস্থিতিতে। তখন ছিল দ্বাপর যুগের শেষ পর্যায়। সে সময় এক কৃষ্ণপক্ষের অষ্টমী তিথির মধ্যরাতে মথুরার রাজা কংসের কারাগারে জন্ম নেন শ্রীকৃষ্ণ। ঐতিহাসিক মথুরা নগরীতে অত্যাচারী রাজা কংসের কারাগারে বন্দি দেবকীর কোলে জন্ম নিয়ে লড়েছিলেন পাশবিক শক্তির বিরুদ্ধে। অন্যায় ও অসুন্দরকে রক্ষার্থে সত্য সুন্দর, পবিত্র ও শুভ শক্তির পক্ষে শ্রীকৃষ্ণের আবির্ভাব ঘটে পৃথিবীতে। বক্তারা আরও বলেন- ভাদ্র মাসের শুক্লপক্ষের অষ্টমী তিথিতে ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জন্ম। পাশবিক শক্তি যখন ন্যায়নীতি, সত্য ও সুন্দরকে গ্রাস করতে উদ্যত হয়েছিল, তখন সেই শক্তিকে দমন করে মানবজাতির কল্যাণ এবং ন্যায়নীতি প্রতিষ্ঠার জন্য শ্রীকৃষ্ণের আবির্ভাব ঘটেছিল।


No comments