-->

Breaking News

বরুড়ায় ৩৬ পরিবারের কর্মসংস্থান করলেন আ.লীগ নেতা শামীম

তাপস চন্দ্র সরকার, কুমিল্লা প্রতিনিধি: কুমিল্লার বরুড়ায় ৩৬ হতদরিদ্র কর্মহীন পরিবারের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করে দিলেন কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি, এসকিউ গ্রুপের চেয়ারম্যান এ জেড এম শফিউদ্দিন শামীম। তিনি কুমিল্লা-৮ (বরুড়া) আসনের সংসদ সদস্য হিসেবে নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী।

শুক্রবার (১ সেপ্টেম্বর) বিকেলে বরুড়া উপজেলার শাকপুর ইউনিয়নের ৯টি ওয়ার্ডের  ৯জন কর্মহীন অসহায় পুরুষকে ১টি করে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা, ৯জন অসহায় নারীকে ১টি করে সেলাই মেশিন, ৯ জন অসুস্থ রোগীকে চিকিৎসা সহায়তা, ৯ জন সন্তান সম্ভবা দুস্থ নারীকে মাতৃত্বকালীন ভাতা, ১৫ জন ত্যাগী ও প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতাকে সম্মাননা ও উপহার এবং ৮টি মসজিদ ও ১টি মন্দিরে আর্থিক অনুদান প্রদান করা হয়।

শাকপুর ইউনিয়নের সাবেক মেম্বার ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা আবুল হাসেম এর সভাপতিত্বে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এ. জেড. এম. শফিউদ্দিন (শামীম) প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এসব অনুদান তুলে দেন। এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা সদস্য ও বরুড়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান হাফিজ আহমেদ, কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য ও বরুড়া পৌরসভার সাবেক মেয়র মোঃ বাহাদুরুজ্জামান, বরুড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও আগানগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাজহারুল ইসলাম মিঠু, বরুড়া উপজেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাবেক সভাপতি ও ঝলম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম নুরু, বরুড়া উপজেলা আওয়ামী মহিলালীগের যুগ্ম-আহবায়ক ও উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কামরুন নাহার শিখা, বরুড়া উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ ফরহাদ হোসেন ও বরুড়া পৌরসভার সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর মিনুয়ারা বেগম প্রমুখ।

অস্বচ্ছল ও দারিদ্রতায় জীবনের শেষ সময়েও মাথার ঘাম পায়ে ফেলে পরিশ্রম করা সহায় সম্বলহীন দুস্থ নারীদের ঘরে বসে আয়ের সুযোগ, প্রসূতি মায়েদের স্বাস্থ্যগত বিষয় এবং যারা চরম দারিদ্রতার কষাঘাতে  চিকিৎসা করাতে পারছেন না, তাদের জন্য এমন মানবিক  উদ্যোগ সময়োপযোগী ও প্রশংসনীয় কাজ বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। 

অটোরিকশা পাওয়া আব্দুল হান্নান নামের একজন   বলেন, হাতে কাজ ছিল না, অনেক কষ্ট করে দিনযাপন করতাম। বাচ্চাদের দুইবেলা পেটভরে খাবার দিতে পারতাম না। শামীম ভাইয়ের দয়ায় এখন নিজের একটা অটোরিকশা হইলো। বৌ-বাচ্চা নিয়ে দুবেলা ভাত তো খাইতে পারবো। 

সেলাই মেশিন নিতে আসা এক নারী বলেন, অনেক কষ্টে সংসার চলে, সেলাই করতে জানি  কিন্তু মেশিন কিনার টাকা নাই। এখন সেলাই মেশিন পাইছি, আসে পাশের বাড়ির মা বোন গো কাপড় সেলাই করুম। কাজও হইবো সংসারও দেখতে পারমু। আল্লাহ ওনার(শফিউদ্দিন শামীম) ভালো করুক। ওনারা আছেন বইলা আমরা গরিবরা বাঁইচা আছি।

এ বিষয়ে শফিউদ্দিন শামীম বলেন- এরআগে বরুড়া উপজেলার আগানগর, পয়ালগাছা, শিলমুড়ি (দ:), খোশবাস (উ:) ইউনিয়নে অনুদান বিতরণ সম্পন্ন করেছেন। পর্যায়ক্রমে বরুড়া উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নে এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে। 

তিনি বলেন- অসচ্ছল মানুষকে স্বাবলম্বী করা, দারিদ্র্য দূরীকরণ, বেকারত্ব হ্রাস, দক্ষ জনশক্তি গড়ে তোলা ও কর্মসংস্থান সৃষ্টি এস কিউ ফাউন্ডেশনের অন্যতম লক্ষ্য। এই লক্ষ্য বাস্তবায়নে আমার পরিবার ৩০ বছর ধরে নানা কর্মসূচি পালন করে আসছে।

No comments